বিশ্ব মাতিয়ে অবশেষে কাল সময় টিভির ইউটিউব চ্যানেলে মুক্তি পাচ্ছে “রুলেট”

ক্যাটাগরি: বিনোদন, শিরোনাম, সর্বশেষ-সংবাদ

Posted: February 14, 2020 at 12:06 am

রুলেটঃ সিদ্ধার্থ ও সাবাতিনি। সর্ম্পকে যুগলবন্দী তারা। কথিত সম্পর্কের তালিকায় নাম তুললে গেলে বলতে হয় বিয়ে হয়ে গেছে তাদের। দু’জনের বিয়ের আগের জীবনে নিজেদের মধ্যে প্রেম ছিলো। এই প্রেম খানিকটা প্রচলিত ঘরানার মতোই কিছু ছিলো। বিয়ের পরে টোনাটুনির মতো করেই চলছিলো সংসার। ভালোই চলছিলো প্রায় সবকিছু, খানিকটা টক, আবার খানিকটা ঝাল ধরনের সম্পর্ক ছিলো সিদ্ধার্থ ও সাবাতিনির।

গল্পের ছলে উঠে আসে তাদের দেখা, তারপর আসে নিজেদের প্রাত্যহিক যাপিত জীবনের গল্প। রুঢ় সত্যি এই যে, রাত যত গভীর হয়, মানুষ তত সত্যি কথা বলতে শুরু করে এবং শেষ পর্যন্ত দুইজনের সামনে বসেই দুজন স্বীকার করে নেয় যে, সর্ম্পকের মধ্যে সৃষ্টি হয়েছে এক ভয়ংকর টানাপড়েন।শেষাংশে মনস্তাত্ত্বিক দ্বন্দ্ব ও রক্তের উপস্থিতিতে চূড়ান্ত কষ্টের পরিণতির মাধ্যমে ব্যবচ্ছেদ ঘটে গল্পের।

এই স্বল্প দৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্রের নির্মাতা হলেন মোহাম্মদ সামিউল মুঈদ। নির্মাতার প্রথম কাজ এটি। ১২ মিনিটের এ সিনেমার গল্পে পাক ভারত উপমহাদেশের যুগলবন্দী তরুণ তরুণীর ভালোবাসার মনস্তত্ত্বের সাথে ইউরোপীয় ঘরানার সংস্কৃতির একটি মেলবন্ধন ঘটিয়েছেন পরিচালক। মূলত রুলেট (ROULETTE) স্বল্প দৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্রটি একটি মানবিক মনস্তাত্ত্বিক দ্বন্দ্ব ও ভালোবাসার অনুভূতির গল্পের ফসল। সিনেমায় সম্পূর্ণ ভিন্ন ধারায় কাজ করেছেন টেলিভিশন পর্দার সফল অভিনেত্রী হুমায়রা হিমু। সিদ্ধার্থ চরিত্রে কাজ করা ফায়জুর মিল্টন গত ১০ দশ ধরে মঞ্চে দুর্দান্ত কাজ করছেন।

অনন্য দক্ষতায় গল্পের অন্যতম মৌলিক চরিত্র সিদ্ধার্থকে ফুটিয়ে তুলেছেন তিনি। ছবিটিতে আরো কাজ করেছেন জান্নাত রোজ ও রাশেদ খান। মূলত পুরো সিনেমার গল্পটি সত্যিকার অর্থেই একটি এক রাতের উপ্যাখান এবং ছবিটির শুট্যিংয়ের কাজ শেষ হয়েছে জুলাই/২০১৬ সালে।পরে ছবিতে তুলির শেষ আঁচড় দিতে কয়েক মাস জুড়ে চলে পোস্ট প্রোডাকশনের কাজ। ছবিটিতে চিত্র সম্পাদনার কাজ করেছেন সালাউদ্দিন বাবু এবং শব্দ গ্রহণ ও প্রকৌশলের দায়িত্বে ছিলেন নাহিদ মাসুদ। পুরো চলচ্চিত্রে সংগীত পরিচালনা ও সুর সঙ্গীতের কাজ করেছেন রাসেল রহমান।

২০১৭ সালের ফ্রেবুয়ারী থেকে বিশ্বের বিভিন্ন চলচ্চিত্র উৎসবে প্রদর্শিত হচ্ছে রুলেট। ইতিমধ্যে ফিলিপাইনের ম্যানিলায় অনুষ্ঠিত আইচিল ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে সেরা সিনেমাট্রোগ্রাফি ক্যাটাগরিতে পুরষ্কার জিতেছে রুলেট। একই বিভাগে স্পেনের দুটি ও ডেনমার্কের একটি স্বল্প দৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্রকে হারিয়ে সেরা সিনেমাট্রোগ্রাফির পুরষ্কার জিতে রুলেট। রুলেট ছবিটিতে সিনেমাট্রোগ্রাফি করেছেন একই বিভাগের শিক্ষার্থী আবিদ মল্লিক।

২০১৭ সালের মার্চ মাসে আয়ারল্যান্ডের ইলিভেশন ইন্ডি ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে বেস্ট স্পটলাইট ফিল্ম বা সেরা স্বল্প দৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্রের ক্যাটাগরিতে সেরা ছবির পুরষ্কার জিতে নিয়েছে রুলেট। এছাড়া মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের লস অ্যাঞ্জেলসের একটি চলচ্চিত্র উৎসবেও সেরা ছবির তালিকায় সেমি ফাইনাল রাউন্ড পর্যন্ত মনোনয়ন পায় রুলেট।বর্তমানে ইউরোপের ইতালী, রোমানিয়া, কানাডা, ব্রাজিলসহ বিশ্বের বেশ কয়েকটি দেশ রুলেটে প্রদর্শিতহয়েছে ও বিশ্বের আরো বেশ কয়েকটি দেশে ছবিটি প্রদর্শিত হয়েছে।
বর্তমান ইউটিউবে ছবিটি মুক্তি দেয়ার কথা রয়েছে।

বিনোদন ডেস্কঃ 

Mujib Borsho

ad

spellbitsoft

YOUTUBE-DIGITAL-KHOBOR

আর্কাইভ

February 2020
SSMTWTF
« Jan  
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
29 
%d bloggers like this: