আস্থাহীনতায় দেশের রোগীরা, সুচিকিৎসা পেতে এখন ভারতমূখী

ক্যাটাগরি: জাতীয়, শিরোনাম, সমগ্র বাংলাদেশ, সর্বশেষ-সংবাদ, স্বাস্থ্য ও রুপচর্চা

Posted: December 19, 2019 at 11:02 am

আস্থাহীনতায়-দেশের-রোগীরা

আস্থাহীনতায় দেশের রোগীরা, সুচিকিৎসা পেতে এখন ভারতমূখী

আস্থা সঙ্কটে বছরে ৫ লাখের বেশি বাংলাদেশি রোগী ভারতমুখী হচ্ছে। বিশেষ করে দেশে চিকিৎসকদের দুর্ব্যবহার, ব্যবসায়িক মানসিকতা আর অতিরিক্ত পরীক্ষা-নিরীক্ষাসহ নানা ভোগান্তিতে অতিষ্ঠ রোগীরা। উল্টোদিকে ভারতের চিকিৎসকদের সেবার প্রতি রয়েছে আত্মবিশ্বাস। অবশ্য চিকিৎসকরাও স্বীকার করলেন রোগীদের কাঙ্ক্ষিত সেবা না পাওয়ার কথা।

ভারতের বিভিন্ন প্রদেশের হাসপাতালে ভিড় দেখা গেছে বাংলাদেশি রোগীদের। নিজ দেশে সঠিক চিকিৎসার অভাবে নতুন করে বাঁচার স্বপ্নে প্রতিদিন দলে দলে রোগী যাচ্ছে কলকাতাসহ ভারতের নানা প্রদেশে। আর প্রতিবছরই ভারতে বাড়ছে ১০ থেকে ১৫ শতাংশ বাংলাদেশি রোগীর সংখ্যা। ভারতে বিদেশি রোগীর ৪৫ শতাংশ বাংলাদেশি। ভুল চিকিৎসা, অতিরিক্ত ওষুধসহ নানা হয়রানির কারণে নিরূপায় হয়ে ভারতমুখী বাংলাদেশিরা রোগীরা।

চিকিৎসকরাও স্বীকার করলেন রোগীরা প্রত্যাশিত সেবা না পাওয়ার কথা। তবে দুষলেন দেশের নানা সুযোগ-সুবিধা ও সীমাবদ্ধতাকে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের হেপাটোলজি বিভাগের চেয়ারম্যান প্রফেসর ডা. মামুন আল মাহতাব বলেন, এখানে দুটি কারণ বেশি দায়ী অতিরিক্ত ওয়ার্ড চাপ, আর রোগীরা সঠিক তথ্য জানেন না। এসব কারণে যথাযথ চিকিৎসা দিতে পারি না। তাই সুচিকিৎসা পেতে এখন ভারতমূখী ।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্যাস্ট্রো এন্ট্রোলোজিস্ট বিভাগের চিকিৎসক চঞ্চল কুমার ঘোষ বলেন, বিশেষ করে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা রোগীদের সময় কম দেন, কাউন্সিলিং কম করেন এসব কারণে রোগীরা আস্থা হারাতে হারাতে সর্দি কাশি হলেও তারা ভারতে যায়।

এদিকে বাংলাদেশের চিকিৎসা ব্যবস্থার সিস্টেমকে দোষারোপের পাশাপাশি ভারতমুখী হওয়ার নানা তথ্য জানান ভারতীয় চিকিৎসকরা।

কলকাতার গ্যাস্ট্রো এন্টোলোজিস্ট এবং প্রেসিডেন্ট ডা. মহেশ গোয়েঙ্কা বলেন, একটা কথা প্রচলিত আছে দূরের জিনিস সব সময় ভালো। রোগীরা মনে করেন আরেক জায়গায় গেলে আমি ভালো চিকিৎসা পাব।

কলকাতার অ্যাপোলা হাসপাতালের ক্যান্সার বিশেষজ্ঞ ডা. শুভদ্বীপ চক্রবর্তী বলেন, আমাদের বিশ্বাসযোগ্যতা হয়তো বেশি। সচেতনতা বেশি, রোগীরা মনে করেন এখানে (ভারত) এলে এক ছাদের নিচে সব চিকিৎসা পাবেন।

সম্প্রতি ভারতের এক তথ্যে উল্লেখ করা হয়েছে, ২০১৪ সালে ৬০ হাজার বাংলাদেশি রোগী ভারতে চিকিৎসা নিলেও ২০১৮ সালে ৪ গুণ বেড়ে দাঁড়ায় ২ লাখ ২২ হাজার। সূত্রঃ সময় নিউজ

spellbitsoft

YOUTUBE-DIGITAL-KHOBOR

আর্কাইভ

January 2020
SSMTWTF
« Dec  
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031
%d bloggers like this: