ওমানের সাথে বাংলাদেশ হারলেও সন্তুষ্ট ওমান প্রবাসীরা

ক্যাটাগরি: খেলাধূলা, জাতীয়, প্রবাস, শিরোনাম, সর্বশেষ-সংবাদ

Posted: November 16, 2019 at 12:54 pm

ওমানের সাথে বাংলাদেশ হারলেও সন্তুষ্ট ওমান প্রবাসীরা -Digital Khobor

 

বাংলাদেশের থেকে ১০০ ধাপ এগিয়ে থাকা শক্তিশালী ওমানের বিপক্ষে হারলেও, প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচের প্রথমার্ধের লড়াইটা ছিল ইতিবাচক।
এমনটাই মনে করেন জাতীয় দলের দুই সাবেক ফুটবলার হাসানুজ্জামান খান বাবলু ও ইমতিয়াজ আহমেদ নকীব।
তাদের মতে দলের বেশ কজন তরুণ ফুটবলার বেশ সম্ভাবনাময়ী, এদের হাত ধরে আগামী কয়েক বছরের মধ্যে বাংলাদেশ দল আরো পরিণত হবে।
সেইসঙ্গে বিশ্বকাপ বাছাই পর্বে লাল সবুজের প্রতিনিধিরা অন্তত একটি জয় পেলে তা হবে দেশের ফুটবলের জন্য বড় অর্জন।

ওমানের বিপক্ষে বাংলাদেশের আশা করার কিছুই ছিল না। মধ্যপ্রাচ্যের শক্তিশালী এই দলটির সাথে লড়াই করাটা বাংলাদেশের জন্য ছিল বেশ চ্যালেঞ্জিং।
যদিও কাতার ও ভারতের বিপক্ষে লড়াই করার অনুপ্রেরণার সঙ্গে সাহসকে পুঁজি করে মাঠে নামে রায়হান- জীবন-জামাল ভুঁইয়ারা।
মূলত ওমানের টোটাল ফুটবলের কাছে হার মানে জেমি ডে বাহিনী। বাংলাদেশ হারলেও, সার্বিক বিচারে ফুটবলারদের পারফরম্যান্সে সন্তুষ্ট সাবেকরা।

বিশ্বকাপ বাছাই পর্বে এ পর্যন্ত চারটি ম্যাচ খেলে ৩টি তে হারের তেঁতো স্বাদ পেয়েছে বাংলাদেশ। সর্বশেষ ম্যাচে ওমানের কাছে ৪-১ গোলে হেরে যায় জেমি ডের শিষ্যরা।
৩৭ বছর আগে ১৯৮২ সালেও ওমানের কাছে পরাজিত হয় লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। অবশ্য তখনকার ওমানের সাথে বর্তমান দলটি যোজন যোজন এগিয়ে।
যার প্রমাণ ফিফা র‌্যাংকিং। ওমান ৮৪ তম স্থানে থাকলেও, বাংলাদেশ ঠিক ১০০ ধাপ পিছিয়ে।

বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দলের সাবেক ফুটবলার হাসানুজ্জামান খান বাবলু বলেন, সার্বিক দিক দিয়ে আমাদের থেকে ওমান দল অনেক এগিয়ে।
তবুও বাংলাদেশের খেলোয়াড়রা উজাড় করে খেলার চেষ্টা করেছে।

বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দলের সাবেক ফুটবলার ইমতিয়াজ আহমেদ নকীব বলেন, সব মিলিয়ে বাংলাদেশ খারাপ খেলেনি। আমরা ওদের থেকে অনেক স্ট্যান্ডার্ড।

সাবেকদের মতে, বিশ্বকাপ বাছাইয়ে অনন্য দলগুলোর চেয়ে তুলনামূলক-ভাবে বাংলাদেশ অনেক পিছিয়ে আছে।
তারুণ্য নির্ভর এ দলকে পরিকল্পনা অনুযায়ী উন্নত প্রশিক্ষণ আর সুযোগ সুবিধা দিলে কয়েক বছরের মধ্য বেশ পরিণত হবে বলে মনে করেন সাবেকরা।

ওমানের সাথে বাংলাদেশ হারলেও সন্তুষ্ট ওমান প্রবাসীরা -Digital Khobor
গ্যালারীতে বাংলাদেশী নারী দর্শকদের উপস্থিতি ছিলো লক্ষণীয়

এদিকে প্রবাসের মাটিতে হাজারো কর্মব্যস্ততার ফাঁকে খেলাটি আনন্দ জুগিয়েছে ওমানে বসবাসরত বাংলাদেশী প্রবাসীদের

মাস্কাটের হিল থেকে খেলা দেখতে আসেন সালাউদ্দিন দম্পতি। তারা বলেন, আসলে ওমান ফুটবলে অনেক শক্তিশালী,
কিন্তু আমাদের দেশও সর্বোচ্চ চেষ্টা দিয়ে সুন্দর খেলে গেছেন। জয় পরাজয়ের চেয়ে খেলা উপভোগই বড়।
আমরা আজকের দিনটাকে প্রবাসের মাটিতে খুব এনজয় করে কাটিয়েছি।

ওয়াদি হাদির ঈসা চৌধুরী, সাইফুল, ইঞ্জিনিয়ার সাঈদ, আমরাতের ইকবাল, ইউনুস খান রুবেল, মামুনসহ একঝাঁক ফুটবল প্রেমিরা
প্রায় দুইশ ফুট লম্বা বাংলাদেশের জাতীয় পতকা নিয়ে গ্যালারিতে হাজির হয়েছেন।
তারা পুরো ম্যাচজুড়ে বাংলাদেশকে করতালি আর বাংলাদেশ বাংলাদেশ শ্লোগানে মুখর করে রাখে।

হামেরিয়া ফুটবল একাদশের আবদুল মন্নান আর তানিমের নেতৃত্বে ফুটবল প্রেমিরাও গ্যালারী কাপিয়েছেন পুরো ম্যাচ জুড়ে।
ম্যাচ শেষে জয় পরাজয়ের চেয়েও বহু বছর পর ওমানের মাটিতে এসে বাংলাদেশ দল খেলেছ তা দেখেই সন্তুষ্ট তারা ।

 

 

ডেক্স রিপোর্ট 

spellbitsoft

YOUTUBE-DIGITAL-KHOBOR

আর্কাইভ

January 2020
SSMTWTF
« Dec  
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031
%d bloggers like this: